চোরাই মাল আটক নিয়ে গ্রামবাসীর সঙ্গে সংঘর্ষ সিলেট সীমান্তে বিডিআরের গুলিতে নিহত ২, আহত ৫০

সিলেটের সীমান্তবর্তী কোম্পানীগঞ্জ ও ছাতক উপজেলার মধ্যবর্তী বাহাদুরপুর গ্রামে গতকাল শনিবার বিডিআর ও গ্রামবাসীর মধ্যে তিন ঘণ্টাব্যাপী হামলা ও পাল্টা হামলার ঘটনা ঘটেছে৷ সীমান্তে চোরাই মাল বোঝাই একটি নৌকা আটককে কেন্দ্র করে এ সংঘর্ষ চলাকালে বিডিআরের গুলিতে দু’জন মারা গেছে৷ আহত হয়েছে সাত বিডিআর সদস্যসহ ৫০ জনেরও বেশি৷ এ সময় বিডিআরের একটি রাইফেল ও একটি সিএমজি এবং ১০০ রাউন্ড গুলি লুট হয়৷ ঘটনার পর বিডিআর বাহাদুরপুরসহ ছয়টি গ্রামের বাড়ি বাড়ি তল্লাশি চালিয়ে দেড় শতাধিক নারী-পুরুষ ও শিশুকে আটক করে৷ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে এলাকায় দাঙ্গা পুলিশ মোতায়েন রয়েছে৷

গ্রামবাসী, বিডিআর, পুলিশ ও বিভিন্ন সূত্রে জানা যায়, গতকাল ভোর প্রায় পৌনে ৪টার দিকে বাহাদুরপুর গ্রামের লোকজন পার্শ্ববর্তী সুনাই নদী দিয়ে আসা ইনডিয়ান চোরাই মালবাহী একটি নৌকা আটক করে৷ বিডিআরের সোর্স বলে পরিচিত আবদুল করিম এ চোরাই মালের মালিক ছিল৷ গ্রামবাসী বিষয়টি ছাতক ও কোম্পানীগঞ্জ থানা পুলিশকে জানায়৷ কিন্তু পুলিশ আসার আগেই ছাতক উপজেলার ছনবাড়ি বিডিআর ক্যাম্প থেকে বিডিআরের একটি দল গিয়ে চালানটি তাদের হাতে তুলে দিতে বলে৷ তাদের কথা না শোনায় বিডিআর সদস্যরা গ্রামবাসীর কয়েকজনকে আটক ও মারধর করে৷ এক পর্যায়ে ছাতক উপজেলার নয়াকোট গ্রামের বাসিন্দা আবদুল জব্বার খোকন মিয়ার নেতৃত্বে বাহাদুরপুরসহ আশপাশের বিভিন্ন গ্রামের অন্তত ৪০০ নারী-পুরুষ ধারালো অস্ত্র, লাঠিসোটা ও পাথর নিয়ে বিডিআরের ওপর হামলা চালায়৷ এ সময় বিডিআর গ্রামবাসীকে প্রতিহত করতে গুলিবর্ষণ করে৷ ভোর ৪টা থেকে সকাল ৭টা পর্যন্ত গ্রামবাসী ও বিডিআরের মধ্যে সংঘর্ষ চলে৷ সকাল ৭টার দিকে বিডিআরের গুলিতে ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারান বাহাদুরপুর গ্রামের গিয়াসউদ্দিন (৭৫)৷ গিয়াসউদ্দিন মারা যাওয়ার তিন ঘণ্টা পর সকাল সাড়ে ১০টায় ওসমানী হাসপাতালে মারা যান অপর গুলিবিদ্ধ আবদুল বারিক বায়েস (৪৫)৷ হামলা চলাকালে গুরুতর আহত হন হাবিলদার শাহজাহান, নায়েক সিরাজউদ্দিনসহ বিডিআরের সাত সদস্য৷ এদের স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে৷ বিডিআরের গুলিতে বিদ্ধ হন বাহাদুরপুর গ্রামের আবদুল বারিক বায়েস মিয়া (৪৩), তাহের মিয়া (৪০), আবদুস শহীদ (৩৮), বাবুল মিয়াসহ (৩৫) অন্তত ১০ ব্যক্তি৷ তারা সিলেটের ওসমানী ও কোম্পানীগঞ্জ হাসপাতালে চিকিত্সাধীন আছেন৷ হামলার পর থেকেই বিডিআর বাহাদুরপুর, পূর্ব জালিয়ারপাড়, পুরনো জালিয়ারপাড়সহ অন্তত ছয়টি গ্রামের হাটে-মাঠে ও বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে গ্রামবাসীকে ধরে আটক করতে থাকে৷ দুপুর পর্যন্ত নিহত গিয়াসউদ্দিনের লাশের পাশে জড়ো করা হয় নারী-শিশুসহ অন্তত দেড়শ’ জনকে৷ বিডিআর ও পুলিশ জানায়, গতকাল দুপুর সোয়া ১টায় লুট হওয়া দুই অস্ত্রের মধ্যে স্থানীয় কবরস্থানের একটি জঙ্গল থেকে একটি রাইফেল ও একটি বাড়ি থেকে ৪০ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়৷ বিকালে উদ্ধার হয় সিএমজিটি৷ বিডিআর দাবি করছে, বাহাদুরপুর গ্রামের জ্যোত্স্না বেগম (৩৩) ১০০ রাউন্ড গুলি লুট করে৷ তবে জ্যোত্স্না জানান, ভোরে হামলা চলাকালে বিডিআর সদস্যরা তার বাড়িতে ঢুকে হামলা করে৷ এক পর্যায়ে বিডিআর তার বাড়িতে গুলি রেখে আসে৷ পরে অন্য এক বিডিআর সদস্য গুলি নিয়ে যায়৷ গতকাল দুপুর ১২টার দিকে সিলেট সদর উপজেলার ইউএনও বদরুন নাহার, সিলেটের এডিসি এটিএম মামুনুর রশিদ, সুনামগঞ্জ জেলার এডিএম আমজাদ হোসেন খান, সুনামগঞ্জ জেলার ছাতক উপজেলার ইউএনও লুত্ফুর রহমানসহ সিলেট ও সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসনের বিভিন্ন স্তরের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে পৌঁছেন৷ এছাড়া বিডিআর ১৭ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল আরিফুল আজিমসহ বিডিআরের বিভিন্ন স্তরের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে আসেন৷ বিডিআর, পুলিশ, জেলা প্রশাসন ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা দুপুরে একাধিকবার বৈঠক করেন৷ লে. কর্নেল আরিফুল আজিম জানান, ঘটনা তদন্তের জন্য কমিটি করা হবে৷ কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম ইসলামপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আবদুল বাছির বলেন, এ ঘটনা দুঃখজনক৷ ঘটনার বিচার হওয়া দরকার৷ নিহত গিয়াসউদ্দিনের ছেলে মোঃ নুরুল ইসলাম জানান, সকালে গোলাগুলির শব্দ শুনে ঘটনা কি জানার জন্য তার বাবা বাসা থেকে বের হয়েছিলেন৷ কোনো অপরাধ না থাকলেও তাকে গুলি করে বিডিআর৷ গিয়াস ও বায়েসের মৃত্যুর খবরে বাহাদুরপুর গ্রামে নেমে এসেছে শোকের ছায়া৷ গ্রামবাসী এ হত্যাকাণ্ডের বিচার দাবি করেছে৷

Source: http://www.jaijaidin.com/view_news.php?News-ID=12589&issue=82&nav_id=1

Advertisements

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s

%d bloggers like this: