ওসমানী বিমানবন্দর বাইপাস সড়ক নির্মাণে ১৪ কোটি টাকা লুটপাট ত্রুটিমুক্ত করতে নেয়া হয়েছে নতুন প্রজেক্ট

সিলেট-কোম্পানীগঞ্জ সড়কের ওসমানী বিমানবন্দর এলাকায় বাইপাস সড়ক নির্মাণের নামে ১৪ কোটি টাকা লুটপাট করা হয়েছে। ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের দায়সারাভাবে কাজ সম্পন্নের খেসারত দিচ্ছে সরকার। রাস-াটিকে যান চলাচলের স্বাভাবিক করে তুলতে আপ কেটে সমতল করার প্রথম প্রজেক্ট হাতে নেয়া হয়েছে। যার প্রয়োজনীয় অর্থ বিগত সরকার ক্ষমতা ছাড়ার কিছুদিন আগে বরাদ্দ দেয়।
চারদলীয় জোট সরকারের আমলে নামমাত্র কাজ দেখিয়ে এই অর্থ লোপাট করা হয়। যে পরিমাণ কাজ করা হয়েছে তাতেও ব্যবহার করা হয়েছে নিম্নমানের উপকরণ। যার কারণে নির্মাণ শেষে কয়েক মাসের মধ্যে রাস-ার বিভিন্ন স্থানে সৃষ্টি হয়েছে শত শত গর্তের। ব্যাপক অনিয়ম আর দুনর্ীতির মাধ্যমে নির্মিত বাইপাস সড়কটি এখন যান চলাচলে মরণ ফাঁদে পরিণত হয়েছে। আধুনিকায়ন ও যুগপোযোগী করার লক্ষ্যে গত সরকার ১৪ কোটি টাকার প্রকল্প গ্রহণ করে। সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান বরাদ্দকৃত অর্থের আংশিক ব্যয় করে দায়সারাভাবে কাজ সম্পন্ন করে। প্রায় সাড়ে ৫ কিলোমিটার দীর্ঘ এই বাইপাস সড়ক নির্মাণে ১৪ কোটি টাকা ব্যয় করা হলেও স্থানীয় লোকজন জানিয়েছেন, ২ কোটি টাকার কাজও হয়নি। অাঁকা-বাঁকা টিলা আর নির্জন চা বাগানের মধ্যদিয়ে নির্মিত সড়কের উদ্বোধনের দু’মাসের মধ্যে রাস-ার পিচ উঠে গিয়ে যান চলাচলে অনুপযোগী হয়ে পড়ে। সড়কের একটি বিপজ্জনক টার্নিং এবং চারটি আপ (উঁচু-নিচু অংশ) দেবে যায়। ফলে প্রতিদিন শত শত পাথরবাহী ট্রাক ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করছে। গোয়াইনঘাট, কোম্পানীগঞ্জ ও সদর উপজেলার জনসাধারণ এই সড়কটিতে যাতায়াত করে থাকেন। সড়কে যাতায়াতকারী লোকজন প্রতিনিয়ত চরম দুর্ভোগের শিকার হচ্ছেন। বিশাল আপ অতিক্রম করতে গিয়ে কোম্পানীগঞ্জের ভোলাগঞ্জ থেকে আসা পাথর বোঝাই ট্রাকগুলো আটকে থাকে ঘণ্টার পর ঘণ্টা। যার খেসারত দিতে হচ্ছে তিন উপজেলার কয়েক লাখ মানুষকে। এদিকে বাইপাস সড়ক নির্মাণের নামে এলাকার যেসব নিরীহ মানুষের বসতবাড়ি ও আবাদি জমি অধিগ্রহণ করা হয়েছে, তাদের ক্ষতিপূরণের টাকাও ঠিক মতো না দেয়ার অভিযোগ উঠেছে। ক্ষতিপূরণের অর্থের জন্য তারা সংশ্লিষ্টদের দ্বারে দ্বারে ঘুরলেও টাকা পাচ্ছেন না। এ ব্যাপারে সড়ক ও জনপথ বিভাগের একজন ঊধর্্বতন কর্মকর্তা জানান, রাস-াটি নির্মাণে সামান্য ত্রুটি রয়েছে এবং বর্তমানে রাস-াটি সংস্কারের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। ওই কর্মকর্তা জানান, রাস-ার আপ কেটে সমতল করার জন্য সওজ নতুন প্রজেক্ট হাতে নেয়। বিগত সরকার দায়িত্ব ছাড়ার আগমুহূর্তে প্রজেক্টের জন্য প্রয়োজনীয় অর্থ বরাদ্দ দেয়। এ প্রজেক্টের কাজে ব্যাপক অনিয়ম করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।
সূত্রঃ http://jugantor.com/online/news.php?id=43575&sys=1

Advertisements

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s

%d bloggers like this: